নিবন্ধ

নগদ মোবাইল ব্যাংকিং এ ফ্রি ক্যাশ আউট করবেন যেভাবে

নগদ মোবাইল ব্যাংকিং চার্জ , নগদ মোবাইল ব্যাংকিং অফার, নগদ মোবাইল ব্যাংকিং সুবিধা

বাংলাদেশ ডাক বিভাগের মোবাইল অর্থিক সেবা নগদ মোবাইল ব্যাংকিং সুবিধা অল্পসময়ের মধ্যেই জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে। সারাদেশে এর এজেন্ট সংখ্যা ১ লাখেরও বেশি। গ্রাহক সংখ্যাও দ্রুত বৃদ্ধি পাচ্ছে। মূলত নগদ এর ক্যাশ আউট চার্জ অন্যদের চাইতে কম হওয়াতে এটি দ্রুত জনপ্রিয়তা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। তবে এটি থেকে একটি সহজ কৌশলে একদম বিনামূল্যেই আপনি ক্যাশ আউট করতে পারবেন। মানে ক্যাশ আউট করতে আপনার কোন খরচ হবেনা, আপনি যত টাকা ক্যাশ ইন করবেন তার পুরোটাই আবার তুলে নিতে পারবেন! ভাবছেন কিভাবে সম্ভব?

এর জন্য আপনাকে কিছু হ্যাক করতে হবেনা বা অবৈধ কিছুও করতে হবেনা। নগদ এর চার্জ বা ক্যাশ আউটের খরচটা নগদ কর্তৃপক্ষই আপনাকে দিয়ে দিবে! আসলে ক্যাশ ইন করলে এবং নগদে টাকা সন্চয় করলে গ্রাহকদের কিছু বোনাস দেয়া হয়। নগদে ক্যাশ ইন করলে যে ক্যাশ ব্যাক দেয়া হয় এবং মাসশেষে যে বোনাস দেয়া হয় সেটা দিয়েই আপনার খরচের টাকা উঠে যাবে। আপনার নিজের কোন খরচ দিতে হবেনা। হিসাব কষে বিষয়টা বুঝিয়ে দিচ্ছি।

নগদ মোবাইল ব্যাংকিং সুবিধা: ফ্রি ক্যাশ আউট সুবিধা যেভাবে পাবেন:

বিকাশে ৫ হাজার টাকা ক্যাশ ইন করলে সেই টাকা ক্যাশ আউট করতে গ্রাহকের খরচ হয় ৯২.৫ টাকা।
(প্রতি হাজারে ১৮.৫ টাকা করে ৫ হাজারে খরচ হবে ১৮.৫×৫ = ৯২.৫ টাকা।)
খরচ মিটিয়ে গ্রাহক হাতে পাবে ৪৯০৭ টাকা ৫০ পয়সা।

অন্যদিকে “নগদ মোবাইল ব্যাংকিং” ব্যবহার করে ৫ হাজার টাকা ক্যাশ ইন করলে গ্রাহক ক্যাশ ব্যাক পাবে ২৫ টাকা। এছাড়া ২৫০০ টাকার বেশি ক্যাশ ইন করলে লাখপতি অফারের আওতায় আপনি কমপক্ষে ৫ টাকা পাবেন যদি আপনি জিততে না পারেন তবুও!

সুতরাং নগদে ৫ হাজার টাকা ক্যাশ ইন করলে আপনার একাউন্টে ব্যালেন্স যোগ হবে ৫০৩০ টাকা (ক্যাশ ইন ৫০০০+ক্যাশ ব্যাক ২৫ + লাখপতি অফার ৫ = ৫০৩০)।

এখন আপনি ৫ হাজার টাকা ক্যাশ আউট করতে চাইলে আপনার খরচ হবে ৭২.৫ টাকা (নগদের ক্যাশ আউট চার্জ প্রতি হাজারে ১৪.৫ টাকা, সুতরাং ৫ হাজারে ১৪.৫×৫ = ৭২.৫)।
অর্থ্যাৎ ক্যাশ আউটের পর আপনি হাতে পাবেন ৫০৩০- ৭২.৫ = ৪৯৫৭.৫ টাকা। এখানে আপনি বিকাশের চাইতে ৫০ টাকা বেশি পাবেন।
কিন্তু একদম ফ্রিতে ক্যাশ আউট করতে চাইলে আপনাকে টাকাটা দুইমাস একাউন্টে রাখতে হবে।

এরপর যদি আপনি এই ৫ হাজার টাকা একমাস আপনার একাউন্টে রাখেন তাহলে মাসশেষে আপনি মুনাফা পাবেন ৩০ টাকার মতো। আপনার ব্যালেন্স হবে ৫০৩০+৩০= ৫০৬০টাকা।

আর যদি আপনি সেই ৫ হাজার টাকা আরো একমাস আপনার নগদ একাউন্টে রাখেন তাহলে মুনাফা পাবেন আরো ৩০ টাকা। তখন আপনার ব্যালেন্স হবে ৫০৩০+৩০+৩০= ৫০৯০ টাকা।

আগেই বলেছি নগদে ক্যাশ আউট চার্জ হাজারে ১৪.৫ টাকা, সুতরাং ৫ হাজার টাকা ক্যাশ আউট করতে খরচ হবে ১৪.৫ × ৫ = ৭২.৫ টাকা। অথচ আপনার একাউন্টে থাকবে ৫০৯০ টাকা। সুতরাং ৭২.৫ টাকা ক্যাশ আউট চার্জ কেটে নেয়ার পরও আপনার একাউন্টে থেকে যাবে ১৭ টাকা ৫০ পয়সা!!!
কোন খরচতো হবেইনা বরং আপনি আরো ১৭.৫ টাকা বেশি পাবেন!!!

যারা এত হিসাব কিতাব বুঝতে পারছেন না তাদের জন্য সহজ করে বলছি,
*নগদে প্রাথমিক ভাবে ৫ হাজার টাকা ক্যাশ আউট করলে আপনার আসল খরচ হবে ৪২.৫ টাকা।
*একমাস পরে ক্যাশ আউট করলে আপনার প্রকৃত খরচ হবে ১২.৫ টাকা।
*আর দুই মাস পরে ক্যাশ আউট করলে আপনার কোন খরচতো হবেইনা বরং সকল খরচ বাদ দিয়েও উল্টো আরো ১৭.৫ টাকা আপনি বেশি পাবেন!!!
এরপর যত বেশিদিন টাকা আপনার একাউন্টে রাখবেন তত বেশি লাভ পেতে থাকবেন!
অনেক সময় টাকা হাতে থাকলে খরচ হয়ে যায়, তাই চাইলে নগদে সন্চয় করে রাখতে পারেন।

নগদ ওয়েবসাইট : nagad.com.bd

নগদ মোবাইল ব্যাংকিং হেল্পলাইন: 16167
নগদ মোবাইল ব্যাংকিং কোড: *167#

31 BD Newspaper, Tv, Radio & Service website in 1 App free download

বিদ্র: ক্যাশ ব্যাকের টাকা আসতে ৭২ ঘন্টা, লাখপতি অফারের টাকা এবং মাসশেষে বোনাসের টাকা আসতে ১ সপ্তাহ পর্যন্ত সময় লাগতে পারে (সরকারের সকল ভ্যাট/ট্যাক্স কেটে নেয়াে পর মাসশেষে বোনাসের পরিমান কিছুটা কম বেশি হতে পারে)। সুতরাং আর দেরি না করে জলদি নগদ মোবাইল ব্যাংকিং একাউন্ট চালু করুন এবং লেনদেন করুন।

ট্যাগ গুলো

মতামত যোগ করুন

মতামত দিতে ক্লিক করুন

error: দুঃখিত, অনুলিপি করা যাবে না ! পরে এই কন্টেন্ট প্রয়োজন হলে আপনার সামাজিক অ্যাকাউন্টের সাথে ভাগ করুন।