Home » চার্জার ফ্যান চার্জ দেওয়ার নিয়ম, চার্জার ফ্যানের দরদাম ও কিছু পরামর্শ
নিবন্ধ

চার্জার ফ্যান চার্জ দেওয়ার নিয়ম, চার্জার ফ্যানের দরদাম ও কিছু পরামর্শ

চার্জার ফ্যান চার্জ দেওয়ার নিয়ম , 14 ইঞ্চি ওয়ালটন রিচার্জেবল ফ্যান ,

আমাদের আজকের আলোচনার বিষয় হলো সঠিক উপায়ে চার্জার ফ্যান চার্জ দেওয়ার নিয়ম ও লক্ষনীয় কিছু দিক। একটি ব্যাটারি চালিত চার্জার ফ্যানকে কিভাবে সঠিকভাবে চার্জ দিতে হয় সে বিষয়গুলোই এখানে তুলে ধরবো।

একটা সময় ছিলো যখন আমাদের সবার বাড়িতেই পাওয়া যেত হাতপাখা। হাতপাখাই ছিলো আমাদের গরমের অস্থিরতা কমানোর প্রধান হাতিয়ার। তবে এখন হাতপাখার ব্যবহার একদমই কমে গিয়েছে। সে যায়গা দখল করেছে ব্যাটারি চালিত চার্জার পাখা।

গরমের দিনে বিদ্যুৎ চলে গেলে বা যেখানে বিদ্যুৎ সংযোগ নেই সেখানে এখন চার্জার ফ্যানই প্রধান ভরসা। আমাদের দেশে চার্জার ফ্যানের একটি অনেক বড় বাজার রয়েছে। লাখ লাখ মানুষ চার্জ দিয়ে রেখে পরে চালানোর উপযোগি ব্যাটারি চালিত ফ্যান ব্যবহার করেন।

তবে আমাদের দেশে চার্জার ফ্যান ব্যাপক ভাবে ব্যবহৃত হলেও এটির ব্যবহার ও পরিচালার বিষয়ে আমাদের জ্ঞানের ঘাটতি রয়েছে। কোন ধরনের চার্জার ফ্যান ভালো, কিভাবে তা ব্যবহার করতে হয় ও কিভাবে চার্জ দিতে হয় তা আমরা অনেকেই জানিনা।

কিন্তু এখন দিন দিন মানুষের সচেতনতা বাড়ছে এবং অনেকেই এই বিষয়গুলো সম্পর্কে জানতে চান। ফলে মানুষের জানার আগ্রহ মেটাতেই আমরা এখানে বিষয়গুলো নিয়ে ধারাবাহিক ভাবে আলোচনা করবো। চলুন তবে শুরু করা যাক।

১ম বার নতুন চার্জার ফ্যান চার্জ দেওয়ার নিয়ম:

বাজার থেকে একটি নতুন চার্জার পাখা কিনে আনার পর সেটা কতক্ষন চার্জ দিতে হবে এই প্রশ্নটি আমাদের সবার মনেই জাগে। আসলে এই বিষয়টি নির্ভর করে পাখাটির ব্যাটারি কত মিলি এম্পিয়ার ও চার্জারটি কত ওয়াটের তার উপর।

একেক কোম্পানী ও মডেলের পাখা একেক রকম তাই না জেনে কিছু নির্দিষ্ট করে বলা সম্ভব নয়। তবে সাধারনত নতুন একটি চার্জার পাখা কেনার পর প্রথমবার সেটিকে ৫/৬ ঘন্টা চার্জ দেয়ার প্রয়োজন হয়।

আপনারা হয়তো খেয়াল করে দেখবেন যে পাখা ক্রয়ের সময় দোকানদারকে জিজ্ঞেস করলে তারা একটি দীর্ঘ সময় পর্যন্ত সেটিকে চার্জ দেওয়ার কথা বলে থাকেন। ১২ ঘন্টা, ১৪ ঘন্টা, ১৬ ঘন্টা এমনকি ২৪ ঘন্টা চার্জ দেওয়ার কথাও বলে থাকেন কেউ কেউ।

আসলে বিষয়টি হলো অজ্ঞতা। অনেকক্ষেত্রে দোকানদাররা না জেনেই একটি নতুন চার্জার পাখাকে ১২ ঘন্টা থেকে ১৪ ঘন্টা চার্জে দিতে বলেন। যার কোন সঠিক ভিত্তি নেই। নতুন একটি পাখাকে ৫/৬ ঘন্টা চার্জ দেয়াই যথেষ্ট।

ব্যাটারি ফুল চার্জ হয়ে যাওয়ার পরও সেটিকে প্লাগে লাগিয়ে রাখার কোন কারন নেই। ফুল চার্জ হয়ে যাওয়ার পরও সেটিকে প্লাগে লাগিয়ে রাখলে বরং ব্যাটারির ক্ষতি হতে পারে। তাই দীর্ঘ সময় বা সারারাত চার্জে লাগিয়ে রাখার প্রয়োজন নেই। ব্যাটারি ফুল চার্জ হয়ে গেলে সেটিকে চার্জ থেকে খুলে ফেলুন।

নিয়মিত ব্যবহারের সময় চার্জার ফ্যান যেভাবে চার্জ দিবেন:

নিয়মিত ব্যবহারের সময় একটি চার্জার ফ্যানকে কতটা সময় ধরে চার্জ দিবেন এ বিষয়টা আসলে নির্দিষ্ট করে বলা সম্ভব নয়। কারন একেক চার্জার ফ্যানের ব্যাটারি ক্যাপাসিটি একেক ধরনের।

মূলত ব্যাটারি ক্যাপাসিটি ও কত ওয়াটের চার্জার ব্যবহার করে চার্জ দেয়া হচ্ছে তার উপর নির্ভর করে ব্যাটারি সম্পূর্ন চার্জ হতে কত সময় লাগবে।

অনেক চার্জার ফ্যানে ব্যাটারি ইন্ডিকেটর থাকে যার মাধ্যমে বোঝা যায় যে ব্যাটারিতে কতটা চার্জ আছে ও কতটা চার্জ খরচ হয়েছে। ইন্ডিকেটর দেখে সেগুলো সহজেই চার্জ দেয়া যায়।

তবে যদি ইন্ডিকেটর না থাকে তাহলে আমাদের দেশে অধিক প্রচলিত চার্জার ফ্যানের মডেলগুলো অনুযায়ি বলা যায় যে আপনার পাখাটি ৩ ঘন্টা থেকে ৪ ঘন্টা চার্জ দিতে পারেন। কারন আমাদের দেশে পাখার যেসব মডেলগুলো বিক্রি সেগুলো সাধারন ৩-৪ ঘন্টা চার্জ দিতে হয়। তবে কিছু কিছু পাখা একটু বেশি সময় চার্জ দিতে হয়|

আপনি প্রতি ২৫০০ মিলি এম্পিয়ার এর জন্য আনুমানিক ১ ঘন্টা করে চার্জ দিতে পারেন। অর্থ্যাৎ আপনার পাখার ব্যাটারিটি যদি ৫০০০ মিলি এম্পিয়ার হয় তবে আপনাকে ২ ঘন্টা চার্জ দিতে হবে আর ব্যাটারিটি যদি ৭৫০০ মিলি এম্পিয়ার হয় তবে আনুমানিক ৩ ঘন্টার মতো চার্জ দিতে হতে পারে।

সবচেয়ে ভালো হয় পাখাটির মোড়কে কোন নির্দেশনা দেয়া আছে কিনা সেটি দেখে নেয়া।

অনেকেই ফ্যানের প্লাগ সারাদিন লাগিয়ে রাখেন। এটি উচিত নয়। কিছু কিছু ফ্যানের ব্যাটারিতে সার্কিট ব্রেকার লাগানো থাকে। চার্জ সম্পূর্ন হয়ে গেলে সার্কিট ব্রেকার আলাদা হয়ে যায়। ফলে চার্জার সারাদিন প্লাগে লাগানো থাকলেও তাতে ব্যাটারির কিছু যায় আসেনা কিন্তু যেসব ব্যাটারিতে সার্কিট ব্রেকার লাগানো নেই সেগুলো সম্পূর্ন চার্জ হওয়ার পরও ব্যাটারিতে ক্রমাগত বিদ্যুৎ সন্চালন হতে থাকে যা ব্যাটারিকে দ্রুত নষ্ট করে ফেলে এবং ব্যাটারির কর্মক্ষমতা কমিয়ে দেয়।

তাই যদি আপনি আপনার ব্যাটারিটি কি রকম তা সঠিক না জেনে থাকেন তবে ব্যাটারি সারাক্ষন চার্জে না লাগিয়ে রাখাটাই ভালো। যখন প্রয়োজন চার্জ দিবেন আবার চার্জ হয়ে গেলে প্লাগ থেকে খুলে ফেলবেন।

চেষ্টা করবেন ব্যাটারির চার্জ সম্পূর্ন শেষ হয়ে যাওয়ার আগেই পূনরায় চার্জ দিতে। কারন বারবার যদি ব্যাটারির চার্জ সম্পূর্ন শেষ করে ফেলেন তবে তা ব্যাটারিকে দূর্বল করে দেয় বলে বিশেষজ্ঞরা জানান। তাই কিছুটা চার্জ বাকি থাকতেই পুনরায় চার্জে লাগান এবং সম্পূর্ন চার্জ হয়ে গেলে প্লাগ থেকে খুলে ফেলুন।

চার্জে লাগিয়ে রেখে চার্জার ফ্যান ব্যবহার করা কি ঠিক?

এটা আপনি কি ধরনের পাখা ব্যবহার করছেন তার উপর নির্ভর করে। কিছু কিছু পাখা রয়েছে যেগুলো চার্জে লাগানো অবস্থায় ব্যবহার করা যায় আবার কিছু পাখা রয়েছে যেগুলো চার্জে লাগানো অবস্থায় ব্যবহার করা যায়না। চার্জ শেষ হলে প্লাগ থেকে খুলে তারপর ব্যবহার করতে হয়। তবে চার্জে লাগিয়ে রেখে দীর্ঘক্ষন পাখা ব্যবহার না করাই ভালো বলে অভিজ্ঞদের মতামত।

ব্যাটারি ভালো রাখতে সংক্ষেপে কিছু পরামর্শ:

* ৩/৪ ঘন্টা পাখাটি চার্জ দিন।
* চার্জে লাগিয়ে রেখে পাখাটি ব্যবহার করবেন না।
* চার্জ সম্পূর্ন শেষ হবার আগেই পুনরায় চার্জে লাগান।
* ব্যাটারি সম্পূর্ন চার্জ হয়ে গেলে প্লাগ লাগিয়ে না রেখে খুলে ফেলুন।
* সরাসরি রোদে বা আগুনের কাছে রেখে ব্যবহার করবেন না, কারন অধিক তাপমাত্রায় ব্যাটারির কর্ম ক্ষমতা কমে যায়।

জনপ্রিয় ব্র্যান্ডগুলোর চার্জার ফ্যান এর দাম:

বর্তমানে বাজারে মূলত ওয়ালটন, ন্যাশনাল, ভিশন, ডিফেন্ডার, কেনেডি, সিবেক, কনিয়ন, মিয়াকো, এপ্যোলো, প্যানাসনিক ও সানকা ব্রান্ডের চার্জার পাখা বেশি বিক্রি হচ্ছে।

সাধারনত ১২ ইঞ্চি ও ১৪ ইঞ্চি চার্জার পাখা বাজারে বেশি বিক্রি হয় এবং এগুলোর দাম মোটামুটি ২৫০০ টাকা থেকে ৩৫০০ টাকার ভিতরে হয়ে থাকে। তবে কোম্পানি ভেদে দাম সামান্য কম বেশি হতে পরে।

১৬ ইঞ্চি পাখাও পাওয়া যায়। এগুলোর দাম দেড়শ থেকে দুইশ টাকা বেশি হবে।

এসব পাখাগুলোর সাথে বর্তমানে স্বল্প ক্ষমতার এলইডি লাইট লাগানো থাকে। বেতার যন্ত্র (Radio) শোনার ব্যবস্থাও থাকে কিছু কিছু নির্ধারিত মডেলের পাখায়।

বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই চার্জার পাখাগুলো টেবিলে ব্যবহারের উপযোগি করে বানানো হয়। তবে চাইলে স্টান্ড পাখাও কিনতে পারেন। সেক্ষেত্রে দাম ১০০ থেকে ২০০ টাকা বেশি দিতে হবে।

এধরনের পাখাগুলো এক চার্জে সাধারনত একটানা ৩ ঘন্টা হতে ৪ ঘন্টা পর্যন্ত অনায়েসে চলতে পারে। তবে স্পিড কমিয়ে ব্যবহার করলে এগুলো আরো বেশি সময় চলতে পারে।

(ওয়ালটন চার্জার ফ্যান দাম ও স্পেসিফিকেশন সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এই লিংকে প্রবেশ করুন)

সঠিক উপায়ে চার্জার ফ্যান চার্জ দেওয়ার নিয়ম, চার্জার ফ্যানের দাম (বাজারদর) সম্পর্কে ধারনা ও লক্ষনীয় প্রধান বিষয়গুলো তো জানলেন। আশা করি আপনাদের উপকারে আসবে। নিয়ম মেনে সঠিকভাবে ব্যবহার করলে আপনার চার্জার ফ্যান ও ফ্যানের ব্যাটারি দীর্ঘদিন ভালো থাকবে ও লম্বা সময় আপনার সেবায় নিয়োজিত থাকবে বলে আশা করা যায়। তাই আপনার যন্ত্রটির যন্ত নিন ও সঠিকভাবে ব্যবহার করুন। ভালো লাগলে শেয়ার করে উৎসাহ দিবেন বলে আশা করি।

Add Comment

Click here to post a comment

এই সপ্তাহের জনপ্রিয় পোস্ট:

বাংলাদেশীদের জন্য সেরা অ্যাপ

BD MEDIA MATE APP SCREENSHOT

আমাদের ওয়েবসাইটের জনপ্রিয় পোস্টগুলি:

BEST APP FOR US PEOPLE

US MEDIA MATE APP